• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

Advertise your products here

Advertise your products here

Advertise your products here

ব্যারিষ্টার সুমনের উদ্যোগে নতুন ঘর পেলেন বিধবা মহিলা


Newsofdhaka24.com ; প্রকাশিত: শুক্রবার, ২৬ আগষ্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১:১০ পিএম
সুমন
ব্যারিষ্টার সুমন,

ওসমানীনগর প্রতিনিধি::
সিলেট-সুনামগঞ্জের স্মরণকালের ভয়াবহ বন্যা আক্রান্ত বানভাসী মানুষের পাশে অনেকে এগিয়ে না আসলেও এগিয়ে এসে ছিলেন দেশ ও প্রবাসীদের আর্থিক সহযোগিতায় এরশাদ আম্বিয়া ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ও সুপ্রীমকোর্টের আইনজীবী ব্যারিষ্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন। এর ধারাবাহিকতায়  ত্রাণ ও পূর্ণবাসন প্রকল্পের পরিচালক মোঃ আহসান হাবিবের তত্বাবধানে সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের পূণর্বাসন প্রকল্পের ৬ষ্ঠ ধাপের আওতায় বিধবা মহিলার জন্য নির্মিত গৃহ হস্তান্তর করা হয়েছে।শুক্রবার বিকেলে উপজেলার ৩নং পৈলনপুর ইউনিয়নের কোনাপাড়া গ্রামের বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত প্রায় ৮ বছর আগে মারা যাওয়া মো: নজিব উল্ল্যার স্ত্রী  বিধবা নুর জাহান বেগমকে নতুন ঘর বুঝিয়ে দেন এরশাদ আম্বিয়া ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ব্যারিষ্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন।


এরশাদ আম্বিয়া ফাউন্ডেশনের প্রকল্প পরিচালক মোঃ আহসান হাবিবের সভাপতিত্বে নতুন ঘর হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান সুপ্রীমকোর্টের আইনজীবী ব্যারিষ্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন।
বিশেষ অতিথি ছিলেন,হাফিজ মশকুর আহমদ,সাদিপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সহ-সভাপতি শাহিন মিয়া,হাজী আখতার হোসেনসহ গ্রামের বিভিন্ন শ্রেনী পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন ।
অনুষ্ঠানে নতুন ঘর পাওয়ার প্রতিক্রিয়ায় বিধবা মহিলা বলেন,স্বামী মারা যাওয়ার পর ১ ছেলে ও ১ মেয়েকে নিয়ে অনেক কষ্টে জীবন-যাপন করছি।বন্যায় ঘর ভেঙ্গে  গেছে,নিজে ভালো করে খেতে পারছি না ঘর বানাবো কি করে।এখন ঘর পেয়ে খুব খুশি আমি ও অমার ছেলে মেয়েরা, মোঃ আহসান হাবিব স্যার ও ব্যারিষ্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন তাদের জন্য আল্লাহর দরবারে দীর্ঘায়ু কামনা করি।
ব্যারিষ্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন বলেন,এই দেশে নদীর সৌন্দর্য উপভোগ করা যায়। আবার নদী আমাদের আতঙ্কিত করে, ভীত করে, যখন বন্যায় সিলেট-সুনামগঞ্জের  কিছু অঞ্চল তলিয়ে যায়।তখন বিপর্যয় নেমে আসে সেইসব এলাকায়। তখন খাবার থেকে শুরু করে সবকিছুর সংকট দেখা দেয়। এই সংকট বা বিপর্যয় বা দুর্ভোগে ভোগা মানুষগুলোর পাশে কেউ দাঁড়ায়, কেউ এড়িয়ে যায়।দেশে-বিদেশের বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষের সাহায্য-সহযোগিতায় বন্যার শুরু থেকে বন্যার্ত মানুষের খাদ্য ও নগদ অর্থ বিতরণসহ ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প ও ঔষধ প্রদান করেছি। পরবর্তীতে খাদ্য সামগ্রী ও কোরবানির মাংস এবং গৃহ নির্মাণ কাজ এবং গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রম ধারাবাহিক ভাবে চলমান রয়েছে। মানুষের কল্যানে এসব কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।
 

Newsofdhaka24.com / নিজস্ব প্রতিবেদক

নারী ও শিশু বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ