• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ; ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

Advertise your products here

Advertise your products here

Advertise your products here

রাজধানীতে বায়ু দূষণ বেড়েই চলেছে


Newsofdhaka24.com ; প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১:৫৭ পিএম
রাজধানীতে বায়ু দূষণ

ঢাকার বায়ুদূষণ প্রসঙ্গে অ্যাপস এর পরিচালক অধ্যাপক আহমদ কামরুজ্জমান মজুমদার জানিয়েছেন ২০২০ সালের তুলনায় ২০২১ সালে গড়ে বায়ু দূষণের পরিমাণ বেড়েছে ৯ দশমিক ৮ শতাংশ।

তাই ২০২২ সালের জানুয়ারি মাসে ২৫ দিনের গরম বায়ুমান সূচক ২১৯.৫২ তে এ পৌঁছেছে।

এক সংবাদ সম্মেলনের মধ্যে জানানো হয়েছে ২০২১ সালে ঢাকা শহরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি দূষণ স্থান ছিল তেজগাঁও এলাকায়। প্রতি ঘনমিটার ৭০ মাইক্রো গ্রাম।

এই সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বায়ু দূষণের ভয়াবহতা থেকে উত্তরণের জন্য ১৫ টি স্বল্প মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদী সুপারিশ তুলে ধরা হয়।

# শুল্ক মৌসুমে সিটি কর্পোরেশন ফায়ার সার্ভিস ও আসা এবং পরিবেশ অধিদপ্তরের সমন্বয় ঢাকা শহর প্রতিদিন ২ থেকে ৩ ঘন্টা পর পর পানি ছিটানোর ব্যবস্থা করতে হবে।

# রাস্তায় ধুলা সংগ্রহের জন্য সাকশন ট্রাকের ব্যবহার করা হবে।

# নির্মাণ কাজের সময় নির্মাণের স্থান সীমানা দিয়ে ঢেকে রাখা হবে।

# ব্যক্তিগত গাড়ি এবং ফিটনেসবিহীন গাড়ি নিয়ন্ত্রণ করতে হবে।

# অবৈধ ইটভাটা গুলো বন্ধ করে প্রযুক্তির বিকল্প ব্যবহার করতে।

#‌‌ ঢাকার আশপাশে জলধারা সংরক্ষন করতে হবে।

# রাজধানীতে প্রচুর পরিমাণে বৃক্ষ রোপণ করতে হবে।

# ভিন্ন সাইকেল লেন এর ব্যবস্থা করতে হবে।

# ইটভাটা তে আগুনে পোড়ানোর বিকল্প ব্যবস্থা করতে হবে।

# নির্মল বায়ু আইন ২০১৯ দ্রুত সম্ভব বাস্তবায়ন করতে হবে।

# সিটি গভর্নেন্স এর প্রচলন এর মাধ্যমে উন্নয়নমূলক কার্যক্রমের জন্য সেবা সংস্থার উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড স্বল্প সময়ে দ্রুত সম্পন্ন করতে হবে।

# পরিবেশ সংরক্ষণে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে।

# ট্রাফিক ব্যবস্থা আরো উন্নত করতে হবে

# সর্বোচ্চ সচেতনতা তৈরি করে গণমাধ্যমে বায়ু দূষণ সম্পর্কে আরো বেশি তথ্যনির্ভর অনুষ্ঠান প্রচার করতে হবে।

# পরিবেশ ক্যাডার সার্ভিস এবং পরিবেশ আদালত চাল এবং কার্যক্রম করতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনের আইন গুলো যদি আমরা মেনে চলি তাহলে আমরা একত্রে একটি সুন্দর পরিবেশ রাজধানী করে তুলতে পারব সংবাদ সম্মেলনে আরো বক্তব্য দেন বাপ্পার নির্বাহী কমিটির সদস্য এম এস সিদ্দিকী গবেষণার প্রধান আব্দুল্লাহ।

Newsofdhaka24.com / নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানী বিভাগের জনপ্রিয় সংবাদ